স্যামসন চৌধুরী’র সন্তানদের অংশগ্রহণে

স্মৃতিকথামূলক অনুষ্ঠান: আমার বাবা

৫ জানুয়ারি রাত ৯টা, মাছরাঙা টেলিভিশন

৫ জানুয়ারি বিখ্যাত শিল্পপতি স্যামসন এইচ চৌধুরী’র মৃত্যুদিন। স্কয়ার গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা এই গুণী শিল্পপতির স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে মাছরাঙা টেলিভিশন বিশেষ অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করেছে। এই আয়োজনের অংশ হিসবে মাছরাঙা টেলিভিশনে প্রচারিত হবে স্যামসন এইচ চৌধুরী’র সন্তানদের অংশগ্রহণে বিশেষ স্মৃতিচারণমূলক অনুষ্ঠান ‘আমার বাবা’।

অনুষ্ঠানটিতে স্যামসন এইচ চৌধুরীকে নিয়ে কথা বলবেন তাঁর তিন ছেলে—অঞ্জন চৌধুরী, তপন চৌধুরী ও স্যামুয়েল চৌধুরী।

স্যামসন এইচ চৌধুরী ১৯২৫ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর ফরিদপুর জেলায় জন্মগ্রহণ করেন। তিনি কলকাতার বিষ্ণুপুর উচ্চবিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেন। এখান থেকেই তিনি সিনিয়র কেমব্রিজ ডিগ্রি অর্জন করেন। এরপর তিনি হার্ভার্ড ইউনিভার্সিটি স্কুল থেকে ব্যবস্থাপনা বিষয়ে ডিপ্লোমা ডিগ্রি লাভ করেন।

স্যামসন চৌধুরী’র বাবা ছিলেন আউটডোর ডিসপেনসারির মেডিক্যাল অফিসার। ফলে তিনি ছোটবেলা থেকেই ওষুধ-পত্র নাড়াচাড়া করেছেন এবং ওষুধ সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা পেয়েছেন। ১৯৫৮ সালে তিনি প্রথম ওষুধ কারখানা স্থাপনের উদ্যোগ নেন। তিনি তাঁর তিন বন্ধুকে সাথে নিয়ে মোট ৮০ হাজার টাকার পুঁজিকে সম্বল করে পাবনায় কারখানা স্থাপন করেন। এভাবেই যাত্রা শুরু করে স্কয়ার ফার্মাসিউটিক্যালস। বর্তমানে এই কারখানায় ৩০ হাজার শ্রমিক কর্মরত।

স্কয়ার গ্রুপ এখন তাদের ব্যবসার ক্ষেত্রকে সম্প্রসারিত করেছে। প্রসাধনসামগ্রী, পোশাক, কৃষিপণ্য, তথ্যপ্রযুক্তি, স্বাস্থসেবা এবং মিডিয়া’সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে স্কয়ার তাদের কর্মকাণ্ড ছড়িয়ে দিয়েছে।

সাতদিন/এমজেড/৪জানুয়ারি২০১৫


আড্ডা ও আলোচনা

 >  Last ›