বেলাশেষে’র অতিথি

বাংলা ভাষার জাপানী লেখক নওমি ওয়াতানবে

১৬ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৫টা ৩০ মি: এসএ টিভি

উপস্থাপনা: এলিনা শাম্মী
প্রযোজনা: কাজী চপল

জাপানী লেখক নওমী ওয়াতানবে লিখছেন বাংলা ভাষায়ও। নওমী সাতদিনকে জানান, দীর্ঘ দিন বাংলাদেশে থাকার ফলে এ দেশের মাটি ও মানুষের প্রতি তাঁর জন্মেছে এক ধরণের মমত্ববোধ। সেই সাথে ভালোবেসে ফেলেছেন বাংলা ভাষাকেও। এ পর্যন্ত বাংলায় লেখা তাঁর ৪টি বই প্রকাশিত হয়েছে। তাঁর লেখা বাংলায় প্রথম বই ‘যাপিত জীবনে আমার বাংলাদেশ’। এবারের বইমেলায় প্রকাশিত হয়েছে তাঁর লেখা আরও তিনটি বই। এর মধ্যে রয়েছে ‘আমি কোথায় দাঁড়াবো’ শিরোনামে প্রবন্ধ সংকলন। বাকি দুটি বই হল জাপানী শিশু সাহিত্যের বঙ্গানুবাদ। এ দুটি হল—‘হাতির গল্প’ ও ‘শেয়ালের গল্প’।

নওমি ওয়াতানবে’র জন্ম জাপানের সাতপ্রো অঞ্চলে। ২০০৯ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত তিনি থেকেছেন বাংলাদেশে। বইমেলা উপলক্ষে তিনি আবার এসেছেন বাংলাদেশে।

নওমী ওয়াতানবে আসছেন ‘বেলাশেষে’র আড্ডায়। কাজী চপলের প্রযোজনায় অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করেছেন এলিনা শাম্মী।

সাতদিন/এমজেড/১৫ফেব্রুয়ারি২০১৫


আড্ডা ও আলোচনা

 >  Last ›